উদ্যোক্তা হিসেবে হাসানের আত্মপ্রকাশ!



পড়াশোনার পাশাপাশি আমরা গঠন করেছি Megaminds Web & IT Solutions’ নামের একটি টিম। ওয়েব ডিজাইন, ওয়েব ডেভেলপমেন্ট মোবাইল অ্যাপ্লিকেশন ডেভেলপ করার কাজ আমরা করে থাকি।

এই টিমের সদস্যা সংখ্যা প্রায় দশ জন। দেশি বিদেশি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের সাথে আমরা কাজ করি। উল্লেখ্য যে টিমের সকল সদস্যই এখনো ছাত্র। ডেভেলপমেন্টের সাথে আমরা চালু করেছি বিশুদ্ধ প্রোগ্রামিং শেখার জন্য একটি ট্রেইনিং প্ল্যাটফর্ম।

বেসিক সি প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজের কোর্স আমরা প্রথমে শুরু করি। পরবর্তীতে চালু করি ডাটা স্ট্রাকচার অ্যালগরিদমের কোর্স। যা ছিল বিশ্ববিদ্যালয়ের বাইরের গণ্ডিতে চালু হওয়া প্রথম উদ্যোগ।

এই অ্যাডভান্স কোর্সগুলো করানো হয় শুধুমাত্র বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ের কম্পিউটার বিজ্ঞান বিভাগে। কিন্তু আমরা শুরু করেছিলাম, যেন প্রোগ্রামিং আগ্রহী যে কোন শ্রেণি পেশার মানুষ এখান থেকে উপকৃত হতে পারেন।

ব্যক্তিগতভাবে আমার ইউটিউব চ্যানেলে নাম্বার সিস্টেমের উপর কিছু ভিডিও টিউটোরিয়াল বানিয়ে আপলোড করেছি। যার থেকে বিভিন্ন কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া শিক্ষার্থীরা খুবই উপকৃত হচ্ছে। তাদের কৃতজ্ঞতাপূর্ণ মেসেজ আমাকে এখন পুলকিত করে।

ঢাকা সিটি কলেজের হাসান: প্রোগ্রামিং যার কাছে মজার খেলা!!

শুরুতে ছিল ফিল্ম মেকিংয়ের ভূত!!


ক্যাম্পাসে প্রোগ্রামিং সোসাইটির কাজ


বাংলা ভাষায় প্রোগ্রামিংয়ের সবচেয়ে বড় গ্রুপ পরিচালনা


উদ্যোক্তা হিসেবে হাসানের আত্মপ্রকাশ!


জনসাধারণের জন্য ‘App of Ramadan’ তৈরি


‘Call for Blood’ এর স্বেচ্ছাসেবক হাসান


ব্যক্তিজীবনে হাসান ও তার পছন্দ


ক্যাম্পাস প্রতিনিধি


 

More news