নিউজিল্যান্ডের ডেভেলপমেন্ট স্কলারশিপ



নিউজিল্যান্ডের মিনিস্ট্রি অব ফরেন অ্যাফেয়ারস এবং ট্রেড প্রতিবছর New Zealand  Development Scholarships ব্যবস্থা করে। আফ্রিকা, এশিয়া, লাতিন আমেরিকা এবং ক্যারিবিয়ান এর স্টুডেন্টরা এই স্কলারশিপ পেতে পারে। এর মধ্যে বাংলাদেশও রয়েছে।

পিএইচডি’র জন্যই এই স্কলারশিপ পাওয়া যাবে। তবে সেক্ষেত্রেও তিনটি ক্যাটাগরি আছে। ছয় মাসের পোস্ট গ্র্যাজুয়েট সার্টিফিকেট, ১ বছরের পোস্ট গ্র্যাজুয়েট ডিপ্লোমা, ২ বছরের মাস্টার্স এবং সাড়ে তিন বছরের পিএইচডি ডিগ্রীর জন্য এই স্কলারশিপ দেওয়া হয়।

তবে সব ফিল্ড পড়াশুনার জন্য নয়। কিছু ডেভেলপমেন্ট ফিল্ডে পড়াশুনা করার জন্যই কেবলমাত্র এই স্কলারশিপ পাওয়া যায়। এর মধ্যে রয়েছে renewable energy, agriculture development, disaster risk management, private or public sector development  

অন্যান্য স্কলারশিপের মত থাকা খাওয়া, টিউশন, মেডিকেল সেবার পাশাপাশি যারা খুব ভালো রেজাল্ট করবে তাদের জন্য স্কলারশিপের শেষে home leave অথবা reunion travel এর জন্যও খরচ বহন করবে। আর থিসিসের জন্য প্রয়োজনীয় যা কিছু লাগবে তা এই স্কলারশিপ দিবে।

তবে এই স্কলারশিপের একটি কঠিন শর্ত হচ্ছে স্কলারশিপের শেষ না হওয়া পর্যন্ত দেশে ফেরা যাবে না। আর যদি সাড়ে তিন বছরের পিএইচডি এর জন্য স্কলারশিপ হয় তবে দুই বছর না হওয়া পর্যন্ত দেশে ফেরা যাবে না।

এই স্কলারশিপের সমস্ত তথ্য পাওয়া যাবে এই লিংকেঃ

https://www.mfat.govt.nz/en/aid-and-development/scholarships/types-of-scholarships

বাংলাদেশি স্টুডেন্টদের জন্য ৪টি ফুলফান্ডিং স্কলারশিপের খোঁজ

USA’র ফুলব্রাইট প্রোগ্রামগুলো


অস্ট্রেলিয়ার পোস্ট গ্র্যাজুয়েট স্কলারশিপ


সুইজারল্যান্ড সরকারের Excellence Scholarship


নিউজিল্যান্ডের ডেভেলপমেন্ট স্কলারশিপ


তথ্যসূত্রঃ স্কলারসফরডেভ ডট কম এবং উল্লেখিত ওয়েবসাইট 

More news